সাক্ষাৎকারসারাবিশ্ব

‘সাউথ লন আর ওয়াশিংটন মনুমেন্ট দেখার স্মৃতি আমাকে তাড়া করবে’

নিউজ ডেস্ক | আগামী ২০ জানুয়ারি নতুন প্রেসিডেন্টের শপথ নেওয়ার মাধ্যমে হোয়াইট হাউস ছাড়বেন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা। গত আটটি বছর তিনি এখানে কাটিয়েছেন। তার সঙ্গে ছিলেন স্ত্রী মিশেল ওবামা, মেয়ে মালিহা এবং শাসাও। প্রেসিডেন্ট ওবামার সঙ্গে সঙ্গে পরিবারের সদস্যরাও হোয়াইট হাউস থেকে বিদায় নেবেন। কিন্তু বিদায় নিলেই কি সবকিছু সহজে ভোলা যায়? ফার্স্ট লেডি মিশেল সেটাই বলেছেন বিশ্বখ্যাত ফ্যাশন ম্যাগাজিন ভোগকে। তৃতীয়বারের মতো তিনি ম্যাগাজিনের প্রচ্ছদে স্থান পেয়েছেন।

ব্রিটিশ পত্রিকা দ্য টেলিগ্রাফ জানিয়েছে, মিশেল ওবামা বলেছেন, বিদায় নেওয়ার পর তার কাছে প্রিয় মূহূর্তগুলো ধরা দেবে বারবার। বিশেষ করে হোয়াইট হাউসের সাউথ লন এবং ওয়াশিংটন মনুমেন্ট দেখার দৃশ্য তিনি কখনোই ভুলতে পারবেন না। হোয়াইট হাউসে আসা মার্কিন ফার্স্ট লেডিদের মধ্যে জনপ্রিয় হিসেবে ইতোমধ্যেই খ্যাতি পেয়েছেন মিশেল ওবামা। প্রচ্ছদে সাউথ লনের সবুজ ঘাসে একটি ফুলের বাগানে কনুই লাগিয়ে খোলা চুলে বসে আছেন মিশেল। চোখের পাপড়ি যেন ফুলের পাপড়ির মতোই আকর্ষন সৃষ্টি করছে। মিশেল ওবামা বলেন, যখন বৃষ্টি নামে তখন সাউথ লনের ঘাসগুলো খুবই সবুজ মনে হয়। বৃষ্টি ভেজা সেই ঘাসের ওপর দিয়ে হাঁটার স্মৃতি আমি কখনোই ভুলতে পারবো না। বারবার এই স্মৃতি আমাকে তাড়া করে ফিরবে। ইচ্ছা করলেও আমি আর এখানে এখনকার মতো এসব দৃশ্য উপভোগ করতে পারবো না। এর আগে ২০০৯ সালে ওবামা প্রথমবার প্রেসিডেন্ট হওয়ার পর ভোগ ম্যাগাজিনের প্রচ্ছদে স্থান পান মিশেল। এরপর ২০১২ সালে ওবামা দ্বিতীয়বার প্রেসিডেন্ট হওয়ার পর ভোগ ম্যাগাজিন মিশেলকে নিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো প্রচ্ছদ প্রতিবেদন প্রকাশ করে।


ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। DeshReport.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

আরো সংবাদ...

মন্তব্য করুন