বিনোদন

ইমেইলে ছদ্মবেশীর সঙ্গে সম্পর্ক গড়েছিলেন কঙ্গনা

২০১৪ সালের জানুয়ারি। হূতিক রোশনের ই-মেইলে একটি বার্তা আসে। সেখানে লেখা, জন্মদিনের বিশেষ উপহারের জন্য কেন ধন্যবাদ জানাল না হূতিক? একই সঙ্গে একটি ছবির পাণ্ডুলিপিও আসে। কঙ্গনা রানাওয়াতের পাঠানো সেই মেইলের জবাবে তিনি লেখেন, কোনো বিশেষ উপহার পাননি এবং পাণ্ডুলিপিটা পড়েছেন। এর জন্য তিনি গর্বিতও যে, কঙ্গনা এত সুন্দর করে লিখেছেন। হাফিংটন পোস্টকে এটাই জানান হূতিক। কঙ্গনার কুইন ছবি মুক্তি পেলে করণ জোহরের দেয়া এক পার্টিতে দেখা হয় দুজনের। কঙ্গনাকে হূতিক কুইনের সফলতার জন্য অভিনন্দন জানান। সঙ্গে এও জানান, ছবিটি পরে সময় পেলে দেখবেন। কঙ্গনা ভীষণ অবাক হয়ে তাকে বলেন, ‘কিন্তু আপনি তো ছবিটা দেখেছেন। এর ছবি ও প্রশংসা জানিয়ে মেইলও করেছেন।’ হূতিক হেসে জানান, কোনো মেইল তিনি পাঠাননি।

হূতিক সাংবাদিকদের জানান, কঙ্গনাকে মাত্র জীবনে একবার কি দুইবার মেইল করেছেন। তাও সেখানে আনুষ্ঠানিক কথা ছিল শুধু। কঙ্গনা যে মেইল অ্যাকাউন্টের কথা বলছেন সেটি তার নয়। হূতিকের ছদ্মবেশে কেউ একজন কঙ্গনাকে এতোদিন ধরে মেইল পাঠাচ্ছে। বরং কঙ্গনা তার প্রতি বেশি আসক্ত। তাকে হাজার হাজার মেইল ও ছবি পাঠিয়ে বিরক্ত করেছেন। তিনি জানান, এমন রাতও গেছে যেদিন তিনি মেইলের যন্ত্রণায় ঘুমাতে পারছিলেন না। হূতিকের ভাষ্য অনুযায়ী কঙ্গনার সঙ্গে তার কোনো সম্পর্ক নেই। শুধুমাত্র ইমেইলের মধ্যে তার ছদ্মবেশীর সঙ্গে সম্পর্ক গড়েছিলেন কঙ্গনা।

কঙ্গনার বোন রাঙ্গোনি চান্ডাল হূতিককে প্রশ্ন ছুড়ে দেন সামাজিক মাধ্যম টুইটারে। হূতিকের সঙ্গে কঙ্গনার যদি কোনো সম্পর্ক না থেকেই থাকে এবং সামনা সামনি দেখা না হয়ে থাকে তাহলে ছবিতে হূতিক কেন কঙ্গনাকে ধরে আছেন। ছবি দেখে বোঝাই যায় কার জন্য কে পাগল ছিল। হূতিক যদিও রাঙ্গোলির এই ছবিকে ফটোশপে এডিট করা বলেন। ধীরে ধীরে কঙ্গনার সঙ্গে হূতিকের সম্পর্ক নিয়ে ধোয়া আরও জমাট বাধছে। ইতিমধ্যে প্রশ্ন উঠেছে, কঙ্গনা হূতিককে মেইল করে বিরক্ত করে গেলে তিনি কেন পুলিশকে বিষয়টা আগে জানাননি। চার বছর ধরে কেন সহ্য করেছেন। কঙ্গনাও এখনও পর্যন্ত কোনো মেইল এবং অন্যান্য ইলেক্ট্রনিক যন্ত্র আদালতের কাছে জমা দেননি। কঙ্গনার দিক থেকেও এ বিষয়ে আর কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।


ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। DeshReport.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

আরো সংবাদ...

মন্তব্য করুন