খেলাপ্রধান সংবাদ

শেষ রক্ষা হলো ইংল্যান্ডের ২-১ এ এগিয়ে

ইংল্যান্ড দলের কোন খেলোয়াড় হাফ সেঞ্চুরি করতে পারেননি। দলের পক্ষে সবোর্চ্চ রান ইংল্যান্ড অধিনায়ক এউইয় মরগানের। আর নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন খেলেছন অপরাজিত ১১২ রানের ইনিংস। কিন্তু শেষ হাসি হেসেছে ইংল্যান্ড। চার রানে জিতে পাঁচ ম্যাচ সিরিজে ২-১ এ এগিয়ে গেছে মরগান বাহিনী।

ওয়েলিংটনে টস জিতে প্রথমে বল করার সিদ্ধান্ত নেয় কিউই অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। কিউই বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে শুরু থেকেই নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারায় ইংলিশরা। দলের হয়ে ইংলিশ অধিনায়ক মরগানের সবোর্চ্চ ৪৮ রানের সঙ্গে অন্যদের ছোট ছোট অবদানে ২৩৪ রান সংগ্রহ করে ইংল্যান্ড। কিন্তু নিউজিল্যান্ডের মাটিতে জেতার জন্য এই রানই যে যথেষ্ঠ তা প্রমাণ করেছে ইংলিশ বোলাররা।

নিউজিল্যান্ডের হয়ে এক অধিনায়ক উইলিয়ামসন ছাড়া আর কেউই মঈন আলী, আদিল রশিদ কিংবা ক্রিস ওকর্সের সামনে দাঁড়াতে পারেনি। শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত একাই দলের হয়ে লড়ে গেছেন কিউই অধিনায়ক। কিন্তু অপরাজিত থেকেও মাঠ ছেড়েছেন মাথা নিচু করে।

কিউইদের হয়ে উইলিয়ামসনের পরে বেশি রান শেষের দিকে ব্যাট করা মিশেল সাটনারের। তিনি ৪১ রান করে রানআউটে কাটা পড়েন। দলের হয়ে আর কেউ ১০ এর ঘরে পৌঁছতে পারেনি। শেষমেষ হাতে দুই উইকেট থাকতে নির্ধারিত ৫০ ওভারে ২৩০ রান করলে ৪ চারের জয় পায় ইংলিশরা।

শেষ ওভারে কিউইদের জয়ের জন্য দরকার ছিল ১৫ রান। কিন্তু শেষের দিকে ক্রিস ওকর্স যে কত ভালো বোলার তা অস্ট্রেলিয়ার পরে আবার একবার প্রমাণ করলেন। সেট ব্যাটসম্যান হিসেবে উইলিয়ামসন ব্যাটে থাকলেও ওভারটি থেকে ১০ রানের বেশি নিতে পারেনি তারা।


ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। DeshReport.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

আরো সংবাদ...

মন্তব্য করুন