খেলাপ্রধান সংবাদ

সালাহ্ ব্যর্থ মিশরের স্বপ্ন গুড়িয়ে নক আউটে রাশিয়া!

নিজস্ব প্রতিবেদক: এতো সহজেও গোল করা যায়, রাশিয়া বিশ্বকাপে এই মিশন প্রমাণেই যেন নেমেছে আয়োজক আয়োজক রাশিয়া। দুই ম্যাচে ৮ গোল, ১৯৩৪ বিশ্বকাপে যা করে দেখিয়েছিলো স্বাগতিক ইতালি। তাছাড়া ২০০২ ও ২০১৪ বিশ্বকাপ মিলিয়ে রাশিয়া দিয়েছিলো মাত্র ৬ গোল!

সেন্ট পিটার্সবার্গ স্টেডিয়াম অনেক নতুনের সাক্ষী হয়ে থাকলো। এই যেমন অপ্রাপ্তির মধ্যেও মিশরের মোহামেদ সালাহ’র একটি গোল তৃপ্তি দিয়েছে দর্শকদের। বিশ্বকাপে সালাহ’র প্রথম গোলটা মিশরের ইতিহাসেই তৃতীয়তম।

র‍্যাংকিংয়ের ৭০ নম্বর দল তাও স্বাগতিক কোটা, তারাই কিনা সর্বপ্রথম দল হিসেবে চলে গেলো নক-আউট পর্বে। ৮ গোলের বিপরীতে রাশিয়া হজম করেছে পেনাল্টি থেকে পাওয়া একটি গোল। ৩ গোল করে পর্তুগালের ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর সাথে যৌথভাবে শীর্ষে আছেন রুশ মিডফিল্ডার ডেনিশ চেরিশভ।

এ যেন রূপকথায় রুশ বিপ্লব!

সৌদি আরবের বিপক্ষে যে ছন্দ দেখিয়েছে রাশিয়া, তারই পুনরাবৃত্তি দেখালো মিশর ম্যাচে। মাত্র ১৫ মিনিটেই ফ্যারাওদের স্বপ্ন চুরমার করে দিয়েছে স্বাগতিকরা।

সালাহদের যেন বললো ‘কেন বিশ্বকাপে এসেছো, তাও এমন বাজে ডিফেন্স নিয়ে।’ মিশরের ডিফেন্ডারদের নিয়ে ছেলেখেলা করেছে চেরিশভরা।

২১ তম বিশ্বকাপ আত্মঘাতী আর পেনাল্টি উৎসবের মঞ্চ। এই ম্যাচের ৪ গোলের একটি আত্মঘাতী ও আরেকটি এসেছে পেনাল্টি থেকে। দ্বিতীয়ার্ধে পেনাল্টি থেকে শান্ত মাথায় গোল করে ইতিহাসে ঢুকে পড়েন লিভারপুলের তারকা স্ট্রাইকার মোহামেদ সালাহ।

সালাহদের বিশ্বকাপ মিশন অপেক্ষা করতে হচ্ছে যদি- কিন্তুর উপর! উরুগুয়েকে সৌদি হারালে আশা থাকছে মিশরের, নইলে লাগেজ গোছাতে হবে এখন থেকেই।


ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। DeshReport.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

আরো সংবাদ...

মন্তব্য করুন