রাজনীতি

ডাইনী শিকারের মতো পাইকারি হারে গ্রেপ্তা নেতাকর্মীদের

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব এ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, ‘সারাদেশে ঝাঁকে ঝাঁকে গায়েবি মামলায় এক অস্বাভাবিক অবস্থা বিরাজ করছে। মধ্যযুগের ‘ডাইনী শিকারের’ মতো পাইকারি হারে গ্রেপ্তার করা হচ্ছে নেতাকর্মীদের।’

আজ শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টায় নয়াপল্টন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন রিজভী।

তিনি আরও বলেন, ‘ফাঁপা উন্নয়নের জিগির তুলে জনগণের অর্থের লুটপাট,বেপরোয়া গুম-খুন আর রক্তপাতের দমবন্ধ করা পরিস্থিতির সুযোগের সদ্ব্যবহার করতেই ২১শে আগষ্ট বোমা হামলার রায়ের দিন ধার্য্য করা হয়েছে।’

রিজভী বলেন, ‘শেখ হাসিনার আমলে বিচারের রায় কি হবে তা জনগণ ভালভাবেই জানে। নির্দোষ খালেদা জিয়াকে কুটকৌশল করে কিভাবে কারাগারে বন্দী রাখা হয়েছে তাও জনগণ জানে। যে দেশে প্রধান বিচারপতিকে বন্দুকের নলের মুখে দেশ ছাড়তে হয়, যে দেশে প্রধান বিচারপতি বিচার পান না, সেখানে বিএনপি নেতাদের বিরুদ্ধে কি বিচার হবে সেটি নিয়ে জনগণ চিন্তিত নয়।’

বিএনপির এই নেতা আরও বলেন, ‘২১শে আগষ্ট বোমা হামলা রায় ঘোষণার আগেই প্রধানমন্ত্রীসহ মন্ত্রীরা বলেছেন-এই রায়ের পর নাকি বিএনপি আরও বিপদে পড়বে। তার মানে এটা সন্দেহ করার যথেষ্ট কারণ আছে যে, ২১শে আগষ্টের রায় কি তাহলে সরকারের ডিকটেশনে লেখা হচ্ছে ?’

সম্মেলনে রিজভী দাবি করেন,‘গতকাল বৃহস্পতিবার সারাদেশে দলীয় ২৭ নেতাকর্মীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ সময় মুন্সিগঞ্জ জেলায় এজাহার নামীয় ৬২ জন নেতাকর্মীসহ ২০০ অজ্ঞাত ব্যক্তির বিরুদ্ধে গায়েবী মামলা দেওয়ার অভিযোগ করেন তিনি। সংবাদ সম্মেলনে তাদের নামও উল্লেখ করেছেন রিজভী। এছাড়াও হবিগঞ্জ,কুমিল্লা এবং নরসিংদীসহ সারাদেশে বাড়ি বাড়ি পুলিশী তাল্লাশী এবং বিভিন্নভাবে পুলিশী হয়রানি চলছে।

 

 

 

দেশরির্পোট/রবিন

 

 

 


ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। DeshReport.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

আরো সংবাদ...

মন্তব্য করুন