বিনোদন

বিয়ে সারলেন তমা, ডিসেম্বরে বড় করে অনুষ্ঠান

জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত নায়িকা তমা মির্জা।  গত ৯ মার্চ তমার বাগদান হয় কানাডার টরেন্টোতে বসবাসকারী হিশাম চিশতির সাথে। তিনি সেখানের ব্যবসা ও রাজনীতির সঙ্গে জড়িত। গতকাল রবিবার রাতে রাজধানীর গুলশান এলাকার একটি কনভেনশন সেন্টারে হিশাম চিশতি ও তমা মির্জার গায়ে হলুদের অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়। এই অনুষ্ঠানে ছিলেন কিছু পারিবারিক লোকজন। জানা গেছে, জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার প্রাপ্ত এই অভিনেত্রীর গায়ে হলুদে আমন্ত্রণ পাননি কাছের বন্ধুরাও।

এদিকে তমার সাথে যোগায়োগ করা হলে তিনি জানান, হিশাম চিশতির ব্যবসার জরুরি কাজের জন্য চলে যাবে। তাই দুই পরিবারের দ্রুত সিদ্ধান্তেই বিয়ে সম্পন্ন হয়। তেমন কাওকেই জানানো হয়নি।

তিনি আরো বলেন, এই বছরের ডিসেম্বরের শেষের দিকে বড় আয়োজন করে ঢাকায় আমাদের  বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা অনুষ্ঠিত হবে। তখন সবাইকে জানাবো।

জানা গেছে, হিশাম চিশতী পেশায় ব্যবসায়ী। ২০১৭ সালে কানাডার পাবলিক চয়েস রিয়েলটি ব্রোকারেজের পক্ষ থেকে টপ গোল্ড অ্যাওয়ার্ড অর্জন করেন তিনি।

তমা মির্জা ‘বলো না তুমি আমার’ ছবির সুবাদে বড় পর্দায় পা রাখেন । এরপর পার্শ্বনায়িকা হিসেবে অভিনয় করেন শাহীন সুমনের ‘মনে বড় কষ্ট’ ছবিতে। অনন্ত হীরা পরিচালিত ‘ও আমার দেশের মাটি’ চলচ্চিত্রের মাধ্যমে তমা মির্জা একক নায়িকা হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেন।এরপর শাহাদাৎ হোসেন লিটনের ‘অহংকার’, দেবাশীষ বিশ্বাসের ‘চল পালাই’, রয়েল খানের ‘গেইম রিটার্নস’ এবং মারিয়া তুষারের ‘গ্রাস’ ছবিতে অভিনয় করেছেন তিনি। শাহনেওয়াজ কাকলীর ‘নদীজন’ চলচ্চিত্রে অনবদ্য অভিনয়ের স্বীকৃতি হিসেবে সেরা পার্শ্ব-অভিনেত্রী বিভাগে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পান এই অভিনেত্রী।


ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। DeshReport.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

আরো সংবাদ...

মন্তব্য করুন