সারাদেশ

ভৈরবে কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা ও পুরষ্কার বিতরণ

আশরাফুল আলম||
কিশোরগঞ্জের ভৈরব উপজেলায় রফিকুল ইসলাম মহিলা কলেজে পঞ্চম শ্রেনী ও অষ্টম শ্রেণির বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদেরকে সংবর্ধনা ও পুরষ্কার বিতরণ করা হয়।এ সংবর্ধনা ও পুরষ্কারের আয়োজন করেন ভৈরবের ঐতিহ্যবাহী শিশু-কিশোরদের সাংস্কৃতিক সংগঠন কাকলী খেলাঘর।উক্ত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ময়মনসিংহ জেলা ও দায়রা জজ মো.হেলাল উদ্দিন। প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন তোমাদের পথচলা মাত্র শুরু। দীর্ঘ পথ পাড়ি দিতে হবে। যারা আজ ভালো রেজাল্ট পেয়েছ এটি তোমাদের শিক্ষা জীবনের সূচনা মাত্র। সামনে আরো বড় পথ রয়েছে।এসএসসি পরীক্ষা এইচ এসসি পরীক্ষা রয়েছে।রয়েছে ভর্তিযুদ্ধ।তারপর আবার চাকরীর জন্য তোমাদের যুদ্ধ করতে হবে।তোমাদের জন্য আমার পরামর্শ হলো তোমাদের সাধনা অধ্যাবসায় তা অব্যাহত করতে হবে এবং আজকের যে ভাল রেজাল্ট সেটি ধরে রাখতে হবে।তাহলে তোমাদের জীবনে সাফল্য আসবে। প্রধান আলোচক ভৈরব পৌর মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা এ্যাড.ফখরুল আলম আক্কাছ।সংগঠনটির সভাপতিত্বে ছিলেন কাকলী খেলাঘর এর সভাপতি সত্যজিৎ দাস ধ্রুব।প্রধান অতিথি ছাড়াও বক্তব্য রাখেন খেলাঘর কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারন সম্পাদক প্রণয় সাহা,রফিকুল ইসলাম মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ শরীফ আহমেদ,তেজগাঁও বিজ্ঞান কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ মো.হাবিবুর রহমান,কবি সুমন রহমান,সংগঠনের সাধারন সম্পাদক নজরুল ইসলামসহ আরো অনেকেই। ভৈরব উপজেলায় ২০১৯ শিক্ষাবর্ষে পঞ্চম শ্রেণী ও অষ্টম শ্রেণির প্রাথমিক সমাপনী ও জেএসসি পরীক্ষায় বৃত্তিপ্রাপ্ত সর্বমোট ২৮১ জনকে সংবর্ধনা ও পুরষ্কার বিতরণ করা হয়।


ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। DeshReport.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

আরো সংবাদ...

মন্তব্য করুন