বিনোদন

তারকাদের বিচ্ছেদময় বছর ২০১৭

শোবিজ অঙ্গনের অনেক তারকা এই বছর তাদের দাম্পত্য জীবনের ইতি টেনেছেন। নানা ভাঙা-গড়ার মধ্যে দিয়ে কেটেছে ২০১৭।তাদের মধ্যে যেমন-

শাকিব-অপু: চলতি বছরের মিডিয়া অঙ্গনের আলোচনার খোঁড়াক ছিলো শাকিব-অপু প্রসঙ্গ। প্রথমে বিয়ের খবর আর বছরের শেষে বিচ্ছেদ সুর। বিবাহিত এই তারকা দম্পতির বিচ্ছেদ হয়নি ঠিকই, তবে সেটা এখন সময়ের ব্যাপার মাত্র। ডিভোর্সের কাগজ শাকিব পাঠিয়েছেন অপুর কাছে। তিন মাস পেরুলেই, ভিন্ন কিছু না ঘটলে, কার্যকর হবে এই বিচ্ছেদ। শাকিব ঘর ভাঙার ব্যাপারে শতভাগ প্রস্তুত থাকলেও, অপু বরাবরই বলছেন তিনি শাকিবের সঙ্গে সংসার করতে চান।

তাহসান-মিথিলা: ২০১৭ সালের অন্যতম অবাক করা বিচ্ছেদ বলা যায় সঙ্গীত শিল্পী তাহসান-মিথিলার বিচ্ছেদ। ১১ বছর তারা একসঙ্গে সংসার করেছেন। আয়রা নামের একটি কন্যাসন্তানও রয়েছে তাদের। কিন্তু বনিবনা না হওয়ায় তাহসান ও মিথিলা দুজনই তাদের ডিভোর্সের বিষয়টি মিডিয়াকে জানা ভক্তদের অনেকে এখনও বিশ্বাস করতে পারেন না যে, এ তারকা জুটিরও ডিভোর্স হয়েছে।

হাবিব- রেহান: চলতি বছরের জানুয়ারি মাসে কণ্ঠশিল্পী হাবিব ওয়াহিদের ডিভোর্স দিয়ে শুরু হয় মিডিয়াতে বিচ্ছেদ। জানুয়ারিতে হাবিব ওয়াহিদের সঙ্গে তার স্ত্রী রেহানের বিচ্ছেদ ঘটে। বিচ্ছেদের সময় উভয়ের সম্মতিতেই কোনো কারণ না বলে ডিভোর্সের ঘোষণা দিলেও মাস-খানেক যেতে না যেতেই মুখ খোলেন রেহান।তানজিন তিশার সঙ্গে হাবিবের সম্পর্কের জের ধরেই বিচ্ছেদের এই ঘটনা ঘটেছে বলে জানান রেহান। তবে কিছু আগে তিশার সঙ্গে প্রেমের বিচ্ছেদ ঘটে হাবিবের।

মিলা ও পারভেজ: একাধিক নারীর সঙ্গে সম্পর্কে জড়িত এমন আরও অভিযোগ এনে পারভেজ সানজারকে ডিভোর্স দেন মিলা। সেপ্টেম্বর মাসে পপ গায়িকা মিলার ডিভোর্স হয়েছে বলে গুজব ছড়িয়ে পড়ে। ৬ অক্টোবর দিবাগত রাত ৩টার দিকে মিলা তার ফেসবুক ভেরিফায়েড ফ্যান পেজে ডিভোর্সের বিষয়টি জানিয়ে একটি স্ট্যাটাস দেন। পারভেজের সঙ্গে ১০ বছর প্রেম করার পর বিয়ে করেছিলেন মিলা। কিন্তু বিয়ের মাত্র ১৩ দিনের মাথায় জানতে পারেন তার স্বামী একাধিক নারীর সঙ্গে সম্পর্কে জড়িত, তাই তাকে ডিভোর্স দেন মিলা।

স্পর্শিয়া ও রাফসান: দীর্ঘদিন ধরেই এক ছেলের সঙ্গে প্রেম করে আসছিলেন স্পর্শিয়া। পরে সম্পর্ক ভাঙ্গে তাদের। সাবেক প্রেমিকের সঙ্গে ব্রেকআপ হওয়ার পর এক প্রকার জিদের বশেই রাফসান আহমেদ নামের তরুণ এক নির্মাতার সঙ্গে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। রাফসানের সঙ্গে টেকেনি সংসার। স্বামীর বিরুদ্ধে অভিযোগ তিনি বেকার, কাজ করার কোন ইচ্ছাও নাকি তার নেই। এছাড়াও রয়েছে আরো অনেক অভিযোগ। তাই বাধ্য হয়ে আনুষ্ঠানিক বিচ্ছেদের পথে হাঁটেন স্পর্শিয়া।

নিলয় ও শখ: মোবাইল অপারেটর কোম্পানি বাংলালিংকের একটি বিজ্ঞাপনে মডেলিং করতে গিয়ে পরিচয় নিলয় ও শখের। কাজ করতে গিয়েই একে অপরের প্রতি ভালোলাগা। এরপর আবার মান অভিমানে দূরে চলে যাওয়া। মান ভাঙ্গলে ফের প্রেম অতঃপর বিয়ে। কিন্তু স্থায়িত্ব পায়নি তাদের সম্পর্ক। ২০১৫ সালের ৭ জানুয়ারি ১০ লাখ টাকা দেনমোহরে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন তারা। চলতি বছর ডিভোর্স হয় তাদের। যদিও কেউ কারও বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ করেন নি। গোপন রেখেছেন বিচ্ছেদের কারণ।

নোভা ও মোহন খান: অভিনেত্রী নোভা ও নির্মাতা মোহন খানের বিচ্ছেদটাও এ বছর হয়েছে। দেড় বছর প্রেম করে ২০১১ সালের ১১ নভেম্বর বিয়ে করেছিলেন তারা। ছয় বছর সংসার করার পর চলতি বছর ২৬ আগস্ট ঢাকা জজকোর্ট কাজী অফিসে পরস্পরকে ডিভোর্স দেন তাঁরা।

সারিকা-মাহিম: টিভি অভিনেত্রী-মডেল সারিকারও সংসার ভাঙল। বিষয়টি শুরুতে গুজব মনে হলেও, শেষপর্যন্ত তা সত্যে পরিণত হয়েছে। ২০১৪ সালের আগস্টে ব্যবসায়ী মাহিম করিমের সঙ্গে প্রেম করে হঠাৎ করেই বিয়ে করেন সারিকা। বিয়ের এক বছরের মাথায় সারিকার কোলজুড়ে আসে কন্যাসন্তান।

এস এন/আর


ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। DeshReport.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

আরো সংবাদ...

মন্তব্য করুন