বিনোদন

নতুন লুকে আজমেরি হক বাঁধন

গত বছর অভিনেত্রী বাঁধন কিছুটা অনিয়মিত ছিলেন। ব্যক্তিজীবনে খানিক জটিলতা থাকায় মনোযোগ সহকারে কাজ করতে পারেননি। তাছাড়া নিজের একমাত্র মেয়ে সায়রাকে সময় দেয়ার জন্যও তিনি ছেড়ে দিয়েছেন অনেক কাজের অফার। সন্তান ও ব্যক্তিগত সব জটিলতা সামলে আবারও পুরোদমে ফিরছেন বাঁধন।

সম্প্রতি নিজের ফেসবুকে বাঁধন একাধিক স্থিরচিত্র প্রকাশ করেছেন। তাতে রীতিমত চমকে গেছেন সবাই। ছ’মাস আগের বাঁধন আর এখনকার বাঁধনের মধ্যে অনেক তফাৎ। এ যেন সেই ২০০৬ সালের বাঁধন।

এমন বদলে যাওয়া প্রসঙ্গে বাঁধন বলেন, গত বছরটা আমার জীবনের সবচেয়ে কঠিন সময় ছিলো। সেই ক্লান্তি ভুলে নতুন উদ্যমে কাজ করতে চাই। তাই নিজেকে ঢেলে সাজাচ্ছি আবারও। দীর্ঘ এক যুগে শোবিজ আমায় অনেক ভালোবাসা দিয়েছে। তাই এই ইন্ডাস্ট্রির প্রতি আমার অনেক দায়িত্ব রয়েছে। সেজন্য মনোযোগ দিয়ে দর্শকের ভালোবাসা নিয়ে কাজ করে যেতে চাই।

গত কয়েক বছর ধরে বাঁধনের অভিনয় জীবনে ভাটা ছিলো। কিন্তু কেন? এই প্রশ্নের জবাবে বাঁধন বলেন, প্রথম কারণ আমার মেয়ে সায়রা। কারণ আমি চেয়েছি আমার মেয়েকে সর্বোচ্চ সময় দিয়ে গড়ে তুলতে। তার যেন কোনওরকম অভাববোধ না হয়, সেদিকে খেয়াল রেখেছি। নিজের কাজকে নয়, সন্তানের লালন-পালনকে বেশি গুরুত্ব দিয়েছি। আল্লাহর অশেষ রহমত আর সবার ভালোবাসায় আমি সেই চেষ্টায় অনেকটাই সফল।

এখন থেকে কী ধরণের কাজ করবেন? এই প্রসঙ্গে বাঁধন বলেন, ক্যারিয়ারে অনেক কাজ করেছি। ভেবে দেখলাম, আমাকে বাঁচিয়ে রাখার মতো তেমন কোনও কাজ নেই। তাই অনুশোচনাবোধ হলো, দায়িত্ববোধ জেগে উঠলো মনের মধ্যে। এখন থেকে টিকে থাকার মতো ভালো মানের কাজ করবো। গল্পভিত্তিক ও চ্যালেঞ্জিং চরিত্রে দেখবেন আমায়। আশা করছি, এই শুরুটা আমায় নতুন করে পরিচয় করিয়ে দেবে। সবাইকে নতুন বছরের শুভেচ্ছা রইলো।

এদিকে বাঁধনের এমন অভিনব লুক দেখে মুগ্ধ হয়েছেন শোবিজের অনেক তারকাই। তার ফেসবুক পোস্টের কমেন্টগুলোতে একটু চোখ বুলালেই সেটা টের পাওয়া যায়। সাবেরি আলম, নওশীন, মারিয়া নূর, কাজী নওশাবা, চিত্রলেখা গুহ, বন্যা মির্জা, রুনা খান, মুশফিকুর রহমান গুলজার, জাকিয়া বারী মম,সাদিয়া জাহান প্রভা,বুলবুল টুম্পা. মাজনুন মিজানের মতো তারকারা তাকে নতুন করে স্বাগত জানিয়েছেন। সবার একটাই প্রত্যাশা- ২০১৮ সালে নতুন এই বাঁধনে মাতবে গোটা শোবিজ।


ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। DeshReport.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

আরো সংবাদ...

মন্তব্য করুন